মেনু নির্বাচন করুন

মুনি কপিলের আস্তানা

বিস্তারিতঃ শাস্ত্র মতে জানা যয় কপিল গর্বিত ও পরাক্রান্ত জেষ্ঠ ভ্রাতা বাসুদেবের চক্রান্তে বিতাড়িত হয়ে উপকূলবর্তী সুন্দরবনের মধ্যে এক আশ্রম প্রতিষ্ঠা করেন।ঐ স্থানটি বর্তমান কপিলমুনি নামে খ্যাত।ইহা কপতাক্ষ নদের তীরে অবস্থিত। কপিল সন্ন্যাসী হয়ে এখানে এক কালী মুর্তি প্রতিষ্ঠা করেন। একে কপিলেশ্বরী কালী বলে লোকে জানত। কপিল ছিল মহাভারতীয় আমলের এক প্রতাপী সন্ন্যাসী। তিনি যেখানে বসে ধ্যান করতেন সেখানে তার আশ্রম হিসেবে ধরা হত।সভ্যতার বিবর্তনের সাথে সাথে তার আশ্রম কপোতাক্ষের তীরে বটমূলে ইটের স্তুপকে নির্দেশ করা হত।কিন্তু নদী ভাঙ্গনের ফলে সে আশ্রমের স্মৃতি চিহ্ন বিলুপ্তির পথে।রায়সাহেব বিনোদ বিহারী সাধু আশ্রমের সঠিক কোন নিদর্শন পাওয়া না যাওয়ায় তার পাশে তিনি একটি নির্মান করেন।

কিভাবে যাওয়া যায়:

উপজেলা হতে প্রায় ১৫ কিঃমিঃ দুরে বিখ্যাত বাজার কপিলমুনিতে এটি অবস্থিত।যেকোন ভাবে এখানে যেতে পারবেন।


Share with :

Facebook Twitter